পর্ব- ২ঃ গবেষনা শুরু করতে যা যা প্রয়োজন

- গবেষনার প্রিরিকুইজিট

লেখার এই অংশটি সবচেয়ে অপ্রয়োজনীয় বলে আমি মনে করেছি, কেননা গবেষনা শুরু করতে ইচ্ছাশক্তি এবং কাজের প্রতি ভালোবাসা ছাড়া আর কিছুই লাগে না। এরপরও কিছু জিনিস পয়েন্ট আকারে আমি লিখছি-

  • লেগে থাকার প্রবল ইচ্ছাশক্তি এবং কাজের প্রতি ডেডিকেশন

  • ওয়েব সার্স করার দক্ষতা

  • ইংরেজিতে মোটামুটি মানের ভালো জ্ঞান

  • নতুন কিছু শেখার আগ্রহ

  • নতুন টেকনোলজি এবং আপডেট সম্পর্কে অবগত থাকা

  • প্রয়োজনীয় কমিউনিটিগুলোতে নিয়মিত খোজখবর রাখা

  • ভালো কারোর সুপারভিশনে কাজ করা বা ল্যাব/ক্লাবের অন্তর্ভুক্ত হওয়া

এগুলো সব ঠিকঠাক আছে তো আপনার মধ্যে? তাহলে চলুন প্রবেশ করি গবেষণা নামক নেশার জগতে...

বিঃদ্রঃ থিসিস বা গবেষনা করতে আসলে টেকনিক্যাল কোনো ব্যাকগ্রাউন্ড বা প্রিরিকুইজিট সেভাবে লাগে না। মৌলিক কোনো বিষয় নিয়ে পড়াশোনা এবং ভিন্নভাবে চিন্তা করার মানসিকতাই শুরু করার জন্য যথেষ্ট। তবে গবেষনাগুলোর যথার্থতা যাচাই করা এবং বাস্তব জীবনে কাজে লাগানোর জন্য অবশ্যই ভালো প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ বা টেকনিক্যাল কিছু টুলস ইউজ করতে জানতে হবে।

কিন্তু আগ্রহ থাকলে আপাতত এগুলো নিয়ে চিন্তা না করে কাজ শুরু করে দেয়াাই বুদ্ধিমানের কাজ। পাশাপাশি আমার যেসকল টুলস লাগবে সেগুলো আইডেন্টিফাই করে ঘাটাঘাটি করবো এবং শিখতে থাকবো।